Torrent

টরেন্ট ডাউনলোড নিয়ে সকল সমস্যার সমাধান [আপডেটেড মেগাটিউন]

372 টিউমেন্টস 66,583 দেখা 1703 প্রিয়

টরেন্টের নাম শুনেছেন? টরেন্ট দিয়ে পাওয়া যায় না এমন কিছু নেই। টরেন্ট দিয়ে দরকারি ফাইলপত্র ডাউনলোড করতে চান? কিন্তু সাহসে কুলোচ্ছে না? কিভাবে করবেন জানেন না? শেখার আগ্রহ আছে? উত্তর যদি 'হ্যা' হয় তাহলে এই টিউনটি আপনারই জন্য....

আমার আরো কিছু লেখা পড়তে দেখুনঃ
২০১২ সালে অ্যাপল: প্রত্যাশা, সম্ভাবনা ও ঝুঁকি

টনসিলের প্রদাহ : কারণ, লক্ষণ, প্রতিকার

হার্ট এটাক কি? কারণ, লক্ষণ, প্রতিরোধ ও প্রতিকার

২০১২ সালে আমেরিকার আরোপিত সোপা/পাইপা আইনের পর টরেন্ট ডাউনলোড জগতে অনেক পরিবর্তন ঘটেছে। আমি সেগুলো খানিকটা আপডেট করে দিয়েছি।

টরেন্ট কি?


টরেন্ট হল একটি পিয়ার টু পিয়ার প্রযুক্তির ফাইল শেয়ারিং পদ্ধতি।

এর মাধ্যমে কোনো একটি ফাইল সারা পৃথিবীতে যত জন লোক ডাউনলোড করতে চায়, তারা একে অন্যের ইন্টারনেট কানেকশনের ব্যান্ডউইডথ ব্যবহার করে ডাউনলোড করতে পারে।  সহজ করে বললে অনেকটা এভাবে বলা যায় যে, ধরি আমরা ৫ বন্ধু পৃথিবীর পাঁচ দেশে অবস্থান করছি। এখন আমাদের ৫০০ মেগাবাইটের একটি দরকারী ফাইল দরকার যা আছে আমার ইংল্যান্ডে অবস্থানকারী বন্ধুর কাছে। বাকি চার জন সেই ফাইলটা চাইছি।

এখন কিভাবে আমরা  সেই ফাইলটি পেতে পারি?

  • প্রথম জন পারে সেটি এক এক করে আমাদের সবার কাছে ই-মেইলে এটাচ করে পাঠাতে। কিন্তু অধিকাংশ ই-মেইল প্রোভাইডার ১০ মেগাবাইটের উপরে এটাচ করতে দেয় না। ফলে এ পদ্ধতি এখানে খাটবে না।
  • প্রথম জন সেটিকে বিভিন্ন ফাইল হোস্টিং সাইটে আপলোড করে দিতে পারে। তার পরে আমরা ডাউনলোড করে নিতে পারি। কিন্তু এখানেও সমস্যা। কেননা অধিকাংশ ফাইল হোস্টিং সাইট ফ্রি ইউজারদের resume সাপোর্ট সহ ফাইল ডাউনলোড দিতে দেয় না। মিডিয়াফায়ার (www.mediafire.com) এরকম ফ্রি ইউজারদেরকেও রিজিউম সাপোর্ট সহ ডাউনলোড করতে দিলেও আপলোডের ক্ষেত্রে ফাইল প্রতি ২০০ মেগাবাইটের লিমিট করে রেখেছে। ফলে আমার ৫০০ মেগাবাইটের ফাইলের ক্ষেত্রে এই পদ্ধতিও খাটল না।

এই অবস্থায় একটা অত্যন্ত সুন্দর একটা ফাইল শেয়ারিং পদ্ধতি হতে পারে টরেন্ট। আমার ইংল্যান্ডে থাকা সেই বন্ধু তার ফাইলটিকে একটা টরেন্ট করে আমাদের দিয়ে দিল। আর আমরা একটি টরেন্ট ক্লায়েন্টের সাহায্যে সরাসরি তার কম্পিউটার থেকে ফাইলটি ডাউনলোড শুরু করে দিতে পারব। এমন কি একসাথে চার জনে ডাউনলোড করার কারনে স্পিড কমার কথা, বরং বেড়ে যাবে। অবিশ্বাস্য লাগছে? ভাবছেন কেন বাড়বে?

কারনটা একটু আগেই বলেছি। আমরা একে অন্যের ইন্টারনেটের ব্যান্ডুইডথ শেয়ার করছি। মনে করি আমার ইংল্যান্ডে থাকা বন্ধুটির কাছ থেকে আমার অন্য তিন বন্ধু যারা যথাক্রমে আমেরিকা, জার্মানী ও জাপানে থাকে তারা ওই ফাইলটির ১৭% , ২০ % ও ৬৬% ডাউনলোড করেছে। এখন আমি যখন ডাউনলোড শুরু করব, তখন আমি শুধু ইংল্যান্ডবাসী বন্ধুর পিসি থেকেই নয়, বাকি তিন বন্ধুর যার যতটুকু ডাউনলোড হয়েছে তাদের কাছ থেকেও ফাইলটির অংশ ডাউনলোড করতে পারব।
এর মানে বুঝতে পারছেন?
হ্যা। এর মানে হচ্ছে ওই ফাইলটির ডাউনলোডকারী যত বাড়বে তত বেশি স্পিডে এটি ডাউনলোড করা যাবে। দেখলেন তো বুঝিয়ে বলার পরে অবিশ্বাস্য ব্যাপারটা এখন কত সহজ মনে হচ্ছে? যারা উবুন্টু ডাউনলোড করেছেন তারা জানেন যে উবুন্টুর সার্ভারের উপর চাপ কমানোর জন্য এখন উবুন্টুও টরেন্টে নামানোর জন্য ক্যানোনিক্যাল আমাদের রিকমেন্ড করে। আর হলিঊডের ওয়ার্নার ব্রাদার্স তো বিট টরেন্টের সাথে চুক্তিই করে বসে আছে।

টরেন্ট ফাইল (filename.torrent) কি?

টরেন্ট ফাইল হল একটি মেটা ফাইল অর্থাৎ প্রয়োজনীয় তথ্য সমৃদ্ধ ফাইল।

এটার অনেকটা চাইনিজ রেস্টুরেন্টের খাবার মেনুর মত। আপনি রেস্টুরেন্টে গেলে আপনাকে একটা মেনু বই ধরিয়ে দেবে আপনি মেনু দেখে অর্ডার দেবেন আর খাবার এসে হাজির হয়ে যাবে। লক্ষ্য করুন মেনুটি কিন্তু খাবার নয়। বরং এটি আপনাকে খাবারের নাম, দাম ইত্যাদি তথ্য জানিয়ে দিচ্ছে। টরেন্ট ও তেমনি একটি মেনুর মত ফাইল। যাতে আপনার দরকারি ফাইলগুলো কোথা থেকে ডাউনলোড করতে হবে বা কত সাইজ এসব জানাবে। মনে করেন আপনি নরমাল যেকোনো সার্ভার(যেকোনো সাইট ধরা যাক) থেকে একটা zip/rar ফাইল নামালেন। ডাউনলোডের পরে দেখতে পেলেন যে দরকারি ফাইল বাদেও যে ফাইলটি আপলোড করেছে সে তার পছন্দের একটা গান/ বা তার নিজের ছবি ফাইলের সাথে দিয়ে দিয়েছে। আর আপনাকে তা ডাউনলোড করতে গিয়ে আরো বেশিকিছুক্ষন বসে থাকতে হয়েছে। ডাউনলোড শেষে যখন দেখবেন আপনার দরকার নেই এমন ফাইলও আপনাকে ডাউনলোড করতে বাধ্য করা হয়েছে, কেমন লাগবে? টরেন্টে এই অসুবিধা নেই। টরেন্ট ফাইলটি নামানোর পরে আপনি যখন টরেন্ট ক্লায়েন্ট দিয়ে তা ওপেন করবেন(ডাবল ক্লিক) তখন সেই টরেন্ট ফাইলটি কি কি ফাইল ডাউনলোড করতে যাচ্ছে তার  একটা লিস্ট আপনাকে দেখাবে। সেখান থেকে আপনি অদরকারী ফাইলগুলো আনচেক করে বাদ দিতে পারবেন। ফলে বিশেষ করে যারা লিমিটেড ব্যান্ডুইডথ এর নেট ব্যবহার করে তাদের উপকার হবে।

আপনি যখন টরেন্ট ডাউনলোডিং সাইট(প্রকৃতপক্ষে ট্র্যাকার সাইট) থেকে কোনো একটি মুভির নামে সার্চ দিয়ে টরেন্ট ফাইলটি ডাউনলোড করলেন, আপনি অবাক হয়ে ভাবতে পারেন এ কি! একটা মুভি এত তাড়াতাড়ি কি ভাবে ডাউনলোড হয়ে গেল? তার পরে খুশি মনে যখন সেটি দেখতে যাবেন অবাক হয়ে দেখবেন যে এটি আসলে মুভি না। বরং এটি হল মাত্র কয়েকশ কিলোবাইটের একটা ফাইল। তাও ওপেন হচ্ছে না কোনো এপ্লিকেশন দিয়েই (কেননা তখনো আপনার পিসিতে কোনো টরেন্ট ক্লায়েন্ট নেই)। মুভি না দিয়ে এই কিলোবাইটের ফাইল দেখে আপনি এহেন প্রতারনা(!) দেখে রেগে মেগে ভাবলেন আর কোনোদিন টরেন্টের ধারেকাছেও যাবেন না, হুম।
হা হা! আপনার এই মনোভাব দূর করার জন্যেই এই পোস্ট।

টরেন্ট দিয়ে কি করে সহজে ডাউনলোড করা যায় তার নাড়ি নক্ষত্র জানিয়ে আজ যাব। তবে প্রথমে আপনাকে প্রথমে আপনার প্রয়োজনেই কিছু জিনিস জানতে হবে যে? এগুলো না জানলেও অত ক্ষতি নেই, তবে জানলে বুঝতে পারবেন কি করে টরেন্ট কাজ করে, কি করে টরেন্টের শুরু কিংবা জানতে পারবেন কিছু টরেন্ট টার্ম (torrent term)। এসব টার্মের মধ্যে আছে সিডার, সিড, পিয়ার, লিচার, ট্র্যাকার, সোয়ার্ম ইত্যাদি। এগুলো নিয়ে বিস্তারিত লিখছি না। কেননা আমাদের টেকটিউন্স এরই এক ভাই darklord তার টিউনে এগুলো অসাধারন ভাবে ব্যাখ্যা করেছেন। আপনারা সেই টিউনটি এইখানে ক্লিক করে নতুন ট্যাব -এ পেইজটি খুলুন আর একবার চোখ বুলিয়ে নিন।

darklord ভাইয়ের টিউনটি পড়ার পরে কিছু জিনিসতো জানতে পারলেন। এবার তো আমি কিছু টেকনিকাল টার্ম ব্যবহার করলেও বুঝতে অসুবিধা হবে না, তাই না? তবে তার পরেও আমি একদম আমার ভাষার সব বলার চেষ্টা করছি। কোনো কিছু না ধরতে না পারলে বা আমার লেখায় ভুল পেলে কমেন্টে তা জানাবেন।

টরেন্টে পাওয়া যায় না এমন ফাইল বিরল। কেননা আমরা যেরকম টেকটিউন্স-এ টিউন না করলে ঘুমাতে পারি না। তেমনি অনেকে আছেন নিজের পিসির ফাইল অন্য লক্ষকোটি মানুষের সাথে শেয়ার না করলে পেটের খাবার হজম করাতে পারেন না। আর এঁদের সংখ্যা বহির্বিশ্বেই বেশি কেননা তাদের ইন্টারনেটের স্পিড বেশি। তাই আন্তর্জাতিক কন্টেন্ট টরেন্টে বেশি পাওয়া যায়। এবং এর সংখ্যা যে কত তা আপনার কল্পনারও বাইরে।

কি পাওয়া যায় টরেন্টে?

বরং এই প্রশ্ন করা যাক, কি পাওয়া যায় না? হলিউডের দুদিন আগে রিলিজ হওয়া মুভি, গান, সফটোয়্যার, টিভি শো, ই বুক, গেমস সহ আরো অনেক কিছু।  এমন কি মুভির ২১ গিগাবাইট সাইজের ব্লু -রে ভার্সনও পাবেন।  সবগুলোই কিন্তু সেরা কোয়ালিটির।  সেটা কেন? একটু চিন্তা করেন, আপনি একটা টরেন্ট অন্যদের সাথে শেয়ার করলেন। ধরা যাক সেটি একটি মুভি। এখন আপনার কাছে আছে এর দুটি প্রিন্ট, একটি হল ক্যাম প্রিন্ট, আরেকটি হল মাস্টার প্রিন্ট অর্থাৎ DVD rip। এখন আপনি কোনটা শেয়ার করবেন? অবশ্যই আপনি মাস্টার প্রিন্টটি শেয়ার করবেন, কেননা আপনি চাইবেন আপনার প্রিন্টটি দেখে অন্যদের ভাল লাগুক। তাছাড়া যারা নিয়মিত টরেন্ট শেয়ার করেন তারা তাদের রেপুটেশন কখনো কমাতে চান না।  আর আপনি নেজেই ভেবে দেখেন আপনার টরেন্ট ডাউনলোড করে যদি এর ফালতু কোয়ালিটি দেখে আপনাকে কতগুলো বকাঝকার কমেন্ট করে, আপনার কি ভাল লাগার কথা? অনেক সময় বাজে কোয়ালিটিও থাকে, সেগুলো একটু বুদ্ধি খাটালেই বোঝা যায়। যেমন আপনি চাচ্ছেন মাস্টারপ্রিন্ট ছবি, পেয়েও গেলেন। মাত্র ২০০ মেগাবাইট। এবার আপনি বলুন, ২০০ মেগাবাইটে কি মাস্টারপ্রিন্ট মুভি আশা করা যায়? আমার খুব ফেভারিট একজন টরেন্ট শেয়ারকারী হলেন PriSm, তার শেয়ার করা টরেন্ট আমি চোখ বন্ধ করে ডাউনলোড করি।

এবার আসুন টরেন্ট দিয়ে ডাউনলোডের পদ্ধতি শিখি:

  • প্রথমেই আপনার লাগবে একটি টরেন্ট ক্লায়েন্ট, এটা হল সেই সফটয়্যার যা দিয়ে আপনি টরেন্ট ফাইলটির(মেনু) মাধ্যমে যে যে ফাইল আপনার ডাউনলোড করা লাগবে(খাবার) সেই ফাইলগুলোর ডাউনলোডার(ওয়েটার)।অনেকরকম টরেন্ট ডাউনলোডার আছে, যেমন ইউটরেন্ট(µTorrent), বিট টরেন্ট, ভিউজ, বিট লর্ড, বিট কমেট ইত্যাদি।আপনি যদি চান একদম হাল্কা কিন্তু অসম্ভব শক্তিশালী টরেন্ট ক্লায়েন্ট, আপনার জন্য মিউটরেন্ট ই হল প্রথম পছন্দের। তবে যদি সৌন্দর্য চান অর্থাৎ কিছু ভিজুয়াল ইফেক্ট সম্বলিত সফট চান তাহলে আছে ভিউজ। তবে অসুবিধা হল ভিউজের ফ্রি ভার্সনে ওরা অনেক এডভারটাইজমেন্ট দেয়(অনেকটা ইয়াহু মেসেঞ্জারের মত), যা বিরক্তির সৃষ্টি করে। তবে ভিউজের সুবিধা হল এটি ব্যবহার করলে আপনার ব্রাউজার দরকার হবে না, সফটটি থেকেই আপনি টরেন্ট সার্চ ও কোনো অতিরিক্ত পেইজ ব্রাইজের ঝামেলা ছাড়াই টরেন্ট ডাউনলোড করে নিতে পারবেন। তবে আমার পরামর্শ থাকল ইউটরেন্ট ব্যবহার করা। আসলে ইউটরেন্টের আসল নাম মিউটরেন্ট(µTorrent)। কিন্তু µ লেখা ঝামেলা বলে এটিকে utorrent লেখা হয়।

উপরের µ চিহ্নিত সবুজ ছবিতে ক্লিক করে µTorrent ডাউনলোড করে নিন(ভয় পাবেন না, এটির সাইজ মেগাবাইটে যায় নি, মাত্র ৪০০কেবি)।

  • এখন আপনার দরকার হল একটি সাইট যেখানে সার্চ দিয়ে আপনি টরেন্ট ফাইল নামাবেন।

সেজন্য অনেক সাইট আছে যেমন:

  • www.thepiratebay.org
  • www.extratorrents.com
  • www.monova.org
  • www.torrenthound.com
  • www.btmon.com
  • www.seedpeer.com
  • এগুলোর মধ্যে আমার বর্তমানে সবচে ভাল লাগে http://www.torrentz.com/ সাইটটি। আপনাদের এই সাইট দিয়েই বাকিটা দেখাব।

কি আছে এই সাইটে?

torrentz.com হল এমন একটি সাইট যা অন্য সব টরেন্ট প্রোভাইডিং সাইট থেকে টরেন্ট খুজে দেয়। অনেকটা গুগলের মত। আপনি যদি thepiratebay.org থেকে টরেন্ট সার্চ করেন, এটি শুধু তার নিজের সাইটেই সেই টরেন্ট টি খুজবে। কিন্তু torrentz.com দিয়ে খুজলে thepiratebay.org তো বটেই, অন্য সকল সাইটেই ওই সম্পর্কিত টরেন্ট খুজে বের করবে।

আসুন সামনে আগাই, http://www.torrentz.com/ তে প্রবেশ করুন। একদম নিচের ছবির মত একটা বক্স আসবে।

এখানে লিখে সার্চ করতে হবে। ধরি আমরা sims 3 গেইমটি ডাউনলোড করব। সেখানে লিখি sims 3। এবার নিচের পেইজটি আসবে।

এখানে বিভিন্ন জনের শেয়ার করা টরেন্ট-এর তালিকা দেখাচ্ছে। লক্ষ্য করুন এখানে সার্চ রেজাল্টের উপরে ডান কোনায় quality লেখা এবং এর পাশে any/good/verified লেখা। এখানে সাধারনত good সিলেক্ট করা থাকে। মানে হল শুধু good quality-র টরেন্টগুলোই প্রদর্শিত হচ্ছে। আর verified মানে হল এগুলোর কোয়ালিটি নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই। সার্চ রেজাল্টে যেগুলোর পাশে সবুজ টিক চিহ্ন আছে, সেগুলোই ভেরিফাইড। এর পরে দেখুন সময় দেখাচ্ছে, এর মানে কতদিন হয়েছে টরেন্টটি শেয়ার করা হয়েছে। এর পরে যে সবুজ রং এর কিছু সংখ্যা লেখা তা হল সিড এর সংখ্যা। অর্থাৎ এই সংখ্যক লোকের কাছে sims 3 এর পুরো ফাইলটি আছে ও তারা সিড করছে। এর পরে নীল অক্ষরে লেখা সংখ্যাগুলো হল পিয়ার এর সংখ্যা। অর্থাৎ এরা বর্তমানে ফাইলটি ডাউনলোড করছে। সিড ও পিয়ারের সংখ্যা যত বেশি স্পিড ও তত বেশি পাবেন। যেগুলোতে সিড কম, সেগুলো ডাউনলোড না করাই ভাল।

এবার রেজাল্ট থেকে যেকোনো একটিতে ক্লিক করি। এই পেইজটি আসবে:
এখানে প্রথম দুটি Direct download ও usenet download হল স্পন্সর্ড অর্থাৎ বিজ্ঞাপন। এগুলোতে ক্লিক করার দরকার নেই।

পরে যেগুলো আছে তাতে ক্লিক করুন। যেমন : thepiratebay.com এ।
একটি পেইজ আসবে যাতে একটি লিঙ্কে লেখা থাকবে download torrent। এখানে ক্লিক করে টরেন্ট ফাইলটি(মেনু) ডাউনলোড করে নিন। এর পরে আপনার টরেন্ট ক্লায়েন্ট দিয়ে এটি ওপেন করুন।  একটি লিস্ট আসবে যে এই টরেন্টটি কি কি ফাইল ডাউনলোড করতে যাচ্ছে।  এখান থেকে অপ্রয়োজনীয় কিছু বাদ দিতে চাইলে বাদ দিন। এবার ok চাপুন আর দেখুন কিছুক্ষনের মধ্যেই ডাউনলোড শুরু হয়ে গেছে।  টরেন্টে ডাউনলোড শুরু হতে একটু সময় লাগে কেননা এটি সিডার বা পিয়ার খুজতে একটু সময় নেয়। কোয়ালিটি ভালো হলে বলতে গেলে সময় লাগেই না।

ডাউনলোডের আগে অন্যদের কমেন্ট পড়ে নিতে পারেন। এতে ফাইলটি ভাল না খারাপ ধারনা হবে। ভাইরাসযুক্ত টরেন্ট প্রকৃতপক্ষে খুব কম।

কি মনে হচ্ছে? ডাউনলোড করা কোনো ব্যাপার? এখন যদি আপনার আরো তাড়াতাড়ি করার ইচ্ছা হয় তখন? হ্যা, তাও সম্ভব। thepiratebay.org কিংবা এধরনের সাইটে প্রবেশ করা ছাড়াও আপনি সরাসরি ডাউনলোড করে নিতে পারেন ম্যাগনেট লিঙ্ক দিয়ে। ম্যাগনেট লিঙ্ক সম্পর্কে জানতে এইখানে ক্লিক করুন।

ম্যাগনেট লিঙ্ক দিয়ে ডাউনলোড:

যে পেইজ থেকে আপনি টরেন্ট ফাইলটি ডাউনলোড করার জন্য পাইরেট বে-তে ঢুকেছিলেন, সেই পেইজে যান। সবগুলো টরেন্ট প্রোভাইডার সাইটের লিস্ট দেখাবে।  লিস্টে সবার নিচে দেখুন লেখা আছে ম্যাগনেট লিঙ্ক(magnet link)। এখানে ক্লিক করুন। আপনার টরেন্ট ক্লায়েন্ট সফটোয়্যার ইন্সটল করা থাকলে তখনি ডাউনলোড শুরু হয়ে যাবে!
ভিউজ নামক ক্লায়েন্টে আপনাদের বলেছিলাম না সরাসরি ডাউনলোড বাটন দেয়াই থাকে? আসলে সেটা একটা ম্যাগনেট লিঙ্ক।

বর্তমানে আমেরিকার নানান এন্টি পাইরেসি আইনের কারনে অনেক সাইটে download torrent অপশনটি আর খুঁজে পাওয়া যায় না, তখন আপনি download magnet link লেখা/চিহ্ন পাবেন। সেটি দিয়ে কাজ সারতে হবে

এখন কিছুক্ষনের মধ্যেই আপনার টরেন্টটি ডাউনলোড শুরু হয়ে যাবে।

চয়ন ভাই নিচে তার কমেন্টে একটি গুরুত্বপূর্ণ কথা উল্ল্যেখ করেছেন। সেটি হল- কোন টরেন্টের সিড বেশী না পেলে হ্যাশ কপি করে গুগলে সার্চ দিলে অন্যান্য সাইটে যদি এই টরেন্টটি থাকে তাহলে তা পাওয়া যাবে,তখন টরেন্টটি ডাউনলোড করলে তা ডাউনলোড না হয়ে পূর্বের টরেন্টটির ট্র্যাকার লিস্ট আপডেট হয়ে যাবে। ফলে সিডের সংখ্যা বাড়বে (ওই সাইটে যত সিডার ছিলো তারা )।

টরেন্ট দিয়ে ডাউনলোড কেন করবেন?

  • আনলিমিটেড রিজিউম সাপোর্ট, অর্থাৎ আপনার অসমাপ্ত ডাউনলোড হারিয়ে যাবার ভয় নেই। একটা ফাইল আপনি ইচ্ছা করলে এক মাস বা যতখুশি সময় নিয়ে নামাতে পারবেন। এমন কি ডাউনলোড চলাকালীন কম্পিউটার ধুম করে বন্ধ হয়ে গেলেও আপনার ডাউনলোড করা অংশটুকু থাকবে নিরাপদ।
  • সিডারের সংখ্যার উপর নির্ভর করে অনেক ভাল স্পিড পাওয়া যায়
  • নিজেকে একটা কমুনিটির সদস্য হিসাবে ভাবতে পারবেন যারা সবাই একটি ফাইল ডাউনলোড করছেন। সতর্ক করে দিচ্ছেন একে অপরকে।

আর সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল

  • টরেন্টে পাওয়া যায় না এমন কিছু বিরল।

বিশেষ দ্রষ্টব্য:

  • উবুন্টুতে/ লিনাক্স মিন্টে টরেন্ট ক্লায়েন্ট আলাদা ইন্সটল করা লাগে না। Transmission bit-toreent client দেয়াই থাকে। তবে ভিউজ আলাদা ইন্সটল করা লাগে।
  • উইন্ডজের ব্যবহারকারি হলে ডাউনলোডের পরে ভাইরাস স্ক্যান করাবেন।
  • ডাউনলোডের পরে আপনিও সিড করুন, কেননা অন্য কেউ সিড করেছে বলেই আপনি ফাইলটি ডাউনলোড করতে পেরেছেন। দরকার হলে আপলোড লিমিট করে দিয়ে সিড করতে পারেন, যেমন: 1kbps
  • যাদের লিমিটেড ব্যান্ডুইডথ তারা সিড না করাই নিজের জন্য ভাল।
  • আপনি নিজেও টরেন্ট তৈরি করে শেয়ার করুন।  কি করে টরেন্ট তৈরি করতে হয় জানতে darklord ভাইয়েরই আরেকটি টিউন দেখুন এখান থেকে।

কিছু হাই- কোয়ালিটি মুভি টরেন্ট দেখুন।

এবার সব জানলেন। টরেন্টের আনন্দময় জগতে বিচরণ করুন।

আপডেটঃ

কিভাবে টরেন্টের স্পিড বাড়াতে হয় হ্যাশ ও ট্রাকার ব্যবহার করে তা দেখতে এই সিরিজের ২য় টিউনটি দেখুন এখানে

কিভাবে আইডিএম IDM এর মাধ্যমে টরেন্ট ডাউনলোড করবেন?

অনেকসময় টরেন্টের স্পিড অনেক কম থাকে। কিন্তু ৭০০ মেগাবাইটের চেয়ে ছোট টরেন্ট গুলো আপনি ইন্টারনেট ডাউনলোড ম্যানেজার দিয়ে ডাউনলোড করতে পারেন। কিভাবে???

প্রথমে উপরের নিয়মে এই পেইজে যানঃ

  • টরেন্টের/ ম্যাগনেট লিঙ্কের  লিঙ্ক কপি করুন।
  • এখন FURK এ যান।
  • রেজিস্ট্রেশন করুন।
  • মাই ফাইলস অপশনে গিয়ে দেখুন ADD FROM TORRENT নামে অপশন আছে।
  • পেস্ট করে সাবমিট বাটনে ক্লিক করে অপেক্ষা করুন
  • ই-মেইল নটিফিকেশন অন করে নিন।
  • টরেন্টটি ডাউনলোড এর জন্য তৈরি হয়ে গেলে আপনাকে মেইল পাঠাবে।
  • এখন FURK এ গিয়ে আপনার টরেন্ট ফুল স্পিডে ইন্টারনেট ডাউনলোড ম্যানেজার দিয়ে ডাউনলোড করুন অনেক কম সময়ে।
যারা যারা এতক্ষন এত সময় খরচ করে আমার এই লেখাটি পড়েছেন সবাইকে মুল্যবান সময় দেয়ার জন্য ধন্যবাদ।
লেখাটি আমার ব্যক্তিগত ব্লগে দেয়া হল।
সাথে সাথে টেকস্পেট.কম এও দেয়া হল।
সর্বস্তরে টেকনোলজির দ্যুতি ছড়িয়ে দিতে লেখাটি শেয়ার করুন আপনার বন্ধুদের সাথে।
।।   ভাল থাকবেন  ।।
Ads by Techtunes - tAds
টিউনার সৌশল মিডিয়া
Ads by Techtunes - tAds
টিউমেন্টস টিউমেন্ট গুলো

ভালো টিউন। চলুক

Pls Visit How to speed Up Your Torrent
Bhi Mind koiren na Amar Obru Keybord Nai Tai Banglish A liklam

আরে মামু!!!! জটিল একখান লেখা দিলা… ভালোই লাগল…

ধন্যবাদ ধন্যবাদ এবং ধন্যবাদ,

ভাইরে অনেক দিন টেকটিউনস বন্ধ ছিল। আজকে আপনার অসাধারন টিউনটি পড়ে মনটা ভাল হয়ে গেল।
খুব ভাল লিখেছেন।
আশা করি নির্বাচিত হবে।
অসীম ধন্যবাদ। 😀

সাইড দিয়া (মেগাটিউন) লিখে দিন

জোস হইছে।।আরো একটু এড করলে আমার মনে হয় ভাল হত।সেটা হচ্ছে কোন টরেন্টের সিড বেশী না পেলে হ্যাশ কপি করে গুগলে সার্চ দিলে অন্যান্য সাইটে যদি এই টরেন্টটি থাকে তাহলে তা পাওয়া যাবে,তখন টরেন্টটি ডাউনলোড করলে তা ডাউনলোড না হয়ে পূর্বের টরেন্টটির ট্র্যাকার লিস্ট আপডেট হয়ে যাবে।।ফলে সিডের সংখ্যা বাড়বে (ওই সাইটে যত সিডার ছিলো তারা )।।
এভাবেও আমার মনে হয় স্পীড বাড়বে।।
ধন্যবাদ।।
ও,আপনার দ্রুত আরোগ্য কামনা করি।।
:)

    আপনার সাজেস্ট করা অংশটুকু এড করে দিয়েছি। আপনার ভাল লাগায় আমারও ভাল লাগছে। এখন অনেকটাই সুস্থ

    হ্যাশ কপি করে গুগলে সার্চ দিলে অন্যান্য সাইটে যদি এই টরেন্টটি থাকে তাহলে তা পাওয়া যাবে,তখন টরেন্টটি ডাউনলোড করলে তা ডাউনলোড না হয়ে পূর্বের টরেন্টটির ট্র্যাকার লিস্ট আপডেট হয়ে যাবে।।ফলে সিডের সংখ্যা বাড়বে (ওই সাইটে যত সিডার ছিলো তারা )।।
    এভাবেও আমার মনে হয় স্পীড বাড়বে ……

    atuku kivabe korbo bujtesi na…

এক কথায় জটিল

টরেন্ট সম্পর্কে জানার খুব ইচ্ছে ছিল, কিন্তু সুযোগ পাচ্ছিলাম না। আপনার অসাধারণ টিউনটি থেকে basic আইডিয়াটা পেলাম। অনেক ধন্যবাদ। চেষ্টা করে দেখি পারা যায় কিনা !

এই আপনাকে চুমা দিতে ইচ্ছা করতেসে 😉

দিহান ভাই অনেকদিন ধরে এ রকমই একটি টুইনের জন্য অপেক্ষায় ছিলাম। আমি রীতিমত অভিভুত আপনার লেখায়। অনেক অনেক অনেক অ-নে-ক ধন্যবাদ। ঈদ মোবারক । ভাল থাকবেন।

Boss, বেশী জোস হইছে। আমি এখনি 4 Gb download দিলাম। ধন্যবাদ।

নাইস টিউন (মেগা টিউন)

হিমায়িত দিহান ভাই, এক্কেবারে ফাটাফাটি ধন্যবাদ আপনাকে।

খুব ভাল একটি টিউন ! আপনাকে আন্তরিক ধন্যবাদ।

ধন্যবাদ ভাই, আমি টরেন্ট থেকা ডাউনলোড করে অনেক ( যেমন অনেক মুভি) ফাইল চালাতে পারিনাই। কারন কি জানাবেন?

    চালাতে পারেন নাই? এ কি বলেন? তবে আমি উল্লেখ করেছি যে একটু বুদ্ধি করে নেবেন।
    cam RiP হল নিম্ন মানের
    DVD Rip হল ভাল মানের
    Blu-Ray Rip হল সবচে ভাল মানের রিপ
    আরেকটা পাবেন নাম Xvid, এগুলো ভাল খারাপ দুটোই হতে পারে। সাবধানে বেছে নেবেন।

    তবে মনে রাখতে হবে mkv ফরম্যাট চালাতে VLC PLAYER বেস্ট। আপনি সবসময় VLC ব্যবহারের অভ্যাস করুন। এটি দিয়ে চলেনা এমন ফাইল নাই বললেই চলে।

টরেন্ট ডাউনলোড নিয়ে এটাই সবচেয়ে ভাল ও সুন্দর টিউন অশেষ ধন্যবাদ এমন একটি সুন্দর টিউন করার জন্য।

ধন্যবাদ , আমি আপনাকেই খুজতেছিলাম, আমি যখন torrent download করি তখন খুবই কম স্পীড পাই ৪-১২ এর মত , আমি QB ১২৮kbps use করি , আমার problem এর solution দিতে পারলে খুব খুশি হতাম

    প্রথম কথা হল ভাই সিডার দেখে ডাউনলোড করবেন। কম সিডার হলে হবে না। ৫জন সিড পেলেন হঠাৎ দেখবেন কেউ একজন চলে গেছে যার স্পিড সবচেয়ে বেশি ছিল। তখন এক লাফে স্পিড নেমে আসবে। বেশি দেখে অন্তত ৫০+ ডাউনলোড শুরু করবেন, আপলোড কমিয়ে রাখবেন(১কেবি বা আরো কমানো গেলে কমাবেন)। torrentz দিয়ে নামানোর সময় খেয়াল করবেন কতটা সাইটে ঐ টরেন্টটি আছে(ঐ সাইটগুলা হল ট্র্যাকার), যত বেশি থাকবে টরেন্টের ডালো স্পিড তত বাড়বে। আর utorrent এ ভাল স্পিড আসে মনে হয়।

এতদিন পরে টিউনখানা পইড়া পরানডা ঠান্ডা হইয়া গেলো……………..আরে মিয়া জটিল লিখছো তো!!!!

ধন্যবাদ নাহিদ ভাই , জটিল টিউন ।

অনেক ভাল টিউন । নতুনদের অনেক কাজে লাগবে

অনেক ভাল টিউন। আপনাকে ধন্যবাদ……………সাথে সাধুবাদ।

দিহান খুবই ভালো লিখেছ ভাই। অনেক কস্ট করলে তাই না?
তোমার আরোগ্য কামনা করছি। আমিন

অসাধারণ টিউন। এর থেকে ভাল বলার মতো ভাষা স্টকে নেই।

টরেন্ট নিয়ে অনেক গোছানো, সুন্দর-তথ্যবহুল টিউন । অনেক কাজে লাগবে, টিউন টি নিয়মিত আপেডট/মডিফাই ও নতুন লিঙ্ক চাই ।
ধন্যবাদ দিহান, Keep Continue…………………

অনেকদিন থেকে টরেন্ট সমন্ধে জানার ইচ্ছে ছিল। খুজছিলামও বটে। কিন্তু কখনো ভাবিনি যে এত ডিটেল্সে টিউনি পাব। জ্বর থাকা সত্ত্বেও এত কষ্ট করে সুন্দর ভাবে টিউনটি করার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।
আর হ্যা টিউনের শেষে আপনার দাবিটির সাথে একমত পোষণ করলাম।

    হায়রে ভাই জ্বরের কথাটাই বলা ঠিক হয়নি এখন সবাই এটার কারণেই হয়তো আমার লেখাটার জন্য মায়া দেখাচ্ছে| আসলে ব্যাপারটা এরকম না |

অনেকদিন থেকে টরেন্ট সমন্ধে জানার ইচ্ছে ছিল। খুজছিলামও বটে। কিন্তু কখনো ভাবিনি যে এত ডিটেল্সে টিউনটি পাব। জ্বর থাকা সত্ত্বেও এত কষ্ট করে সুন্দর ভাবে টিউনটি করার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।
আর হ্যা টিউনের শেষে আপনার দাবিটির সাথে একমত পোষণ করলাম।

এক কথায় অসাধারণ……
[একটি দাবি: টেকটিউনস এর error establishing database connection এর শেষ দেখতে চাই। কোনো সমাধানই যদি না হবে, তাহলে নতুন সার্ভার দিয়ে কি লাভ হল? দরকার হলে আরো খরচ করে অনেক ভিজিটর ঢুকলেও কোনো এরর দেখাবে না এমন ব্যবস্থা নেয়া হোক। সে জন্য অর্থযোগাড়ের জন্য যদি টেকটিউন্স কর্তৃপক্ষ সাইটে এড পাবলিশ করে তাতেও অন্তত আমার কোনো আপত্তি নেই]
>>>>>>>সহমত<<<<<<<

    এছাড়াও একটা দাবী হল টেকটিউন্স কে WORDPRESS 3.0.1 এ কনভার্ট করা(সম্ভব হলে) আর ভাল সার্ভার ব্যবহার। দুদিন পর পর নাই হয়ে যাওয়া কতটুকু মানায়?

অসম্ভব সুন্দর হইছে, অনেকদিন থেকে টরেন্ট সমন্ধে জানার ইচ্ছে ছিল। ধন্যবাদ দিহান ভাই

One of the best tune I have ever seen in techtunes. many many thanks.
onekdin dhore torent sunsilam kintu bujhtesilam na. clear kore dilen.
e rokom e valo kisur protashay roilam.
Pongkoj

দারুন……………………………………

অনেক কিছু জানতে পারছি … অনেক ভুল ধারনার অবসান হইছে।।নাহিদ ভাই thanks ♥♥ ….

ভাইসাহেব, আমি আগে বিটলর্ড দিয়ে ফাইল নামাতাম।17কেবি পেতাম। কিন্তু কি যে হল এখন বিটলর্ড, মিউ টরেন্ট কোনটাই আর কাজ করেনা। মানে স্পীড় 0.3 সব্বোর্চ।আর সব্বোর্চ সিডার দেখে দিয়েও দেখেছি। একই অবস্থা।পুনরায় অপরাটিং সিস্টেম ইনস্টল করেছি। তাতেও কাজ দেয় না। সাহায্য পেলে কৃতার্থ হতাম।

    অপারেটিং সফট ইন্সটল করাটা মনে হয় দরকার ছিল না তবু করে ফেলেছেন কি আর করা
    আপনা সমস্যাটা বুঝতে পারছিনা।
    আশা করি কেউ না কেউ সাহায্য করবেন

    উনার হউতো কানেকশানে সমস্যা হচ্ছে,
    সেটা হতে পারে নেটা কানেকশান,
    আবার এমনো হতে পারে
    যে মুল সীডারদের চেয়ে পীয়ারড সিডারের সংখ্যাই বেশি তাই
    আমি এমনই একটা টরেন্ট নামাচ্ছিলাম, যেটার মুল সিডার নাই, কিন্তু ওই যে পিয়ারড সিডার আছে, এখন বলেন আমার ফাইলটা কি নামবে???
    অবশ্যই না, যযদিও সীদার শো করবে,
    কিন্তু লাভের লাভ কিছুই না

    ওহ আচ্ছা! লাকি ভাইকে ধন্যবাদ

হিমায়িত ভাই আপনি সত্যিই হিমালয়ের মতো ঠান্ডা না হয় এতো বড় টিউন করা সম্ভব না,কারন দেশের বিদ্যুতের যা অবস্থা তা নিশ্চই এক
বারে সম্ভব হয়নি। খুব সুন্দর হয়েছে আর তাই আপনাকে সুন্দর একটা ধনবাদ।

    আমার এলাকায় কিজন্য জানি বিদ্যুৎ সমস্যা এত নাই… জানিনা কেন, তবে আমার দিন রাত মিলিয়ে আধা ঘন্টার বেশি কারেণ্ট যায়না। তবে এইটিউন করতে একটু সময় ত লেগেছেই আর কি

আসাধারণ হইছে ধন্যবাদ।

প্রিয়তে নিয়া নিলাম এবং ধন্যবাদ আপনাকে।

অসাধারন । অপূর্ব । ধ — — — ন্য — — — বা — — — দ । আর কিছু বলার নাই । আমি আপনার ফ্যান হয়ে গেলাম ।

আমার টিউনখানা ১৭৪২ বার দেখা হয়েছে? আমি পুরাই মুগ্ধ !

ধন্যবাদ।
আসাধারণ হইছে

হিমায়িত দিহান ভাই ও প্রিয় টেকটিউনার ভাইয়েরা
আমাকে সবাই একটু সাহায্য করবেন। আমার একটা সফটওয়ার খুব দরকার
সবাই মিলে একটু খুজে দিন প্লিজ,
Software টির নাম- Channel Studio Pro 8.0 এটি Phoenix Innovations কোং তেরি।
এটির হোম পেজ -http://www.phoenixin.com/
এই সফটওয়ার টি দ্বারা টিভি চ্যানেল পরিচালনা করা যায়।
সফটওয়ার টির DEMO আমার কাছে আছে। ডেমো সাইজ হচ্ছে ২৪ ও ১৬ মেগা বাইট।
কিন্তু আমার ফুল ভারসন দরকার।
সবাই মিলে একটু খুজে দিন প্লিজ। যদি পায় তাহলে আমি অনেক উপকৃত হতে পারব আপনাদের দ্বারায়।
আর এ জাতিয় অন্য কোন ভাল সফটওয়ার থাকলে প্লিজ আমাকে ডাউনলোড লিংক দিবেন।
সবাই কে ধন্যবাদ ভাল থাকবেন।

আসাধারণ। I LOVE YOU.

সোজা কথায় অসাধারন টিউন।
টরেন্ট সম্পরকে এখন প্রায় সব ফকফকা।
থ্যাঙ্কস ব্রাদার।

ভাল টিউনের জন্য ধন্যবাদ।

খুব ভাল টিউন ধন্যবাদ

😀 হিমায়িত ভাই, অনেক ধন্যবাদ আপনাকে এতো ডিটেল্স একটা টিউন করার জন্য। আপনার কষ্ট সফল হোক, সবাই উপকার পাক।অনেক দুর এগিয়ে যান দোয়া রইলো।:)
অনেক ভালো থাকুন, সব সময়।
শুভ কামনা :)

    আশা করি পড়েছেন। আপনার কমেন্টটা পড়ে সত্যিকার অর্থেই ভাল লেগেছে। কেন লেগেছে আপনি বুঝতেই পারছেন। আপনার ক্ষোভটা বুঝি এবং এটাও স্বীকার করি যে কারো দেয়া কিছু ডাউনলোড করলে অন্তত কিছুটা কৃতজ্ঞতা দেখানো উচিত কমেন্ট করে। কিন্তু তাও যদি মানুষ না করে আমার কি তাই না?কমেন্ট না করলেতো টিউনার রা ব্যর্থ হয়ে যাবে না। না?
    থ্যাংস।

    😀 দিহান ভাই আমি আসলে কিছু ধরে রাখি না, যেটা ভালো সেটা ভালো বলি যেটা খারাপ সেটা খারাপ বলি।এর মানে এই না যে খারাপ কথাটা বলেছে তাকে খারাপ মনে করবো।তাই সাথে সাথে তার ভালো কিছু দেখলে আপন করে নেই।এখানে সত্যি আপনাকে কিছু মিন করি নাই। জুস্ট একটা এক্সামপল দিলাম।আর আমিতো বললাম ই কমেন্টস এর নিয়ে কনো মথা বেথা নাই আমার। এই টিউন টা আমি অনেক আগে একটা সাইটে করেছিলাম সেখানে কিন্তু লিংক দিয়েছিলাম শুরু থেকেই।বললাম ই তো দেখতে চেলাম এই সাইটের কিছু মানুষ কে।তাই ইচ্ছা করে কাজটা করেছি।আসা করি বুঝাতে পারলাম। :) :)
    পুরাটা পড়ি নাই, ফ্রী টাইমে পড়ে নিবো, আমি সিউর যতটুকুই জানি না কেনো এখানে আরো নতুন কিছু পাবো।অনেক পুরনো কিছু থেকেও নতুন কিছু পাওয়া যায় আমার বিস্বাশ।
    অনেক ভালো থাকুন।পাশে থাকুন বা নাই থাকুন কথা দিলাম পাশে থাকবো। :)

    ভাই আপনার সাথেই আমার হবে। ওকে। আমাকে ফেসবুকে এড করবেন? আপনার আইডিতে এড রিকোএস্ট বন্ধ করা। সরাসরি কথা বলার মানুষ দরকার আছে। এতে টিটিরই লাভ। আমার মেজাজ গরম হইছিল আপনে লাকিএফেম ভাইরে রাজাকার বলায়। জাহোক সাথে থাকব আমি, আর কেউ যদি না থাকেও।

    হাহাহাহা, ডিটেক্ট বলি নাই কিন্তু লজিক দিয়ে বলেছি।সাইকলজি টেস্ট করলাম।হাহাহহা,আচ্ছা এগুলো বাদ। :) :) আমি এড করে নিবো আপনাকে।
    ধন্যবাদ :)

টরেন্টের A to Z জানা হলো।কাজও হয়েছে।Thank you & this is best tune(about torrent).

সকালে অনেক চেষ্টা করেছি।
এটা পড়ে আবার চেষ্টা করে দেখি।
ধন্যবাদ

oooooooooooooooooosssssssssssssssssaaaaaaaaaaaaaaaammmmmmmmm!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!>

খুব ভাল টিউন, ভাল লাগলো, চালিয়ে যান ____-____-____

ধন্যবাদ, অনেক উপকার পেলাম।।।

upload limit 1kb/s তে রাখলে 1GB download করলে মাএ 5MB upload হয়

জটিল , তবে সহজ ভাবে লেখার জন্য ধন্যবাদ ।

ভাই, যদি এই সাইটে রেপুর সিস্টেম থাকতো, তা হলে আমি আপনাকে পরবর্তি ১০টি টিউনে প্লাস রেপু দিতাম। এতোদিন খালি টরেন্ট দেখতাম, কিন্তু বুঝতাম না। আপনাকে অসংখ্য অসংখ্য অসংখ্য ধন্যবাদ।

    ইমরান ভাই উপকার হলেই তো ভাল লাগে। কারো কোন কাজে লাগল না এই রকম লেখা দিয়ে কি লাভ আছে ভাই? আশা করি টরেন্টকে ব্যবহার করবেন, শুরু করতে পারেন আজকে বের হওয়া উবুন্টু ১০.১০ ম্যাভেরিক মিরক্যাট ডাউনলোড করার মাধ্যমে।

পড়ে কমেন্ট করা খুব সহজ কথা নয় টেকটিউন্স এর জন্যে। স্লো স্পিডএর ইন্টারনেট আর তার উপর গোদের উপর বিষফোঁড়ার মতন টেকটিউন্স এর বিশ্ববিখ্যাত স্লো লোডিং সত্বেও যারা কমেন্ট করেছেন, খুবই ভাল লেগেছে। আমার মনে হয় এবার নতুন কোন টিউনকে নির্বাচিত করার সময় এসেছে। অনেক দিনতো ছিল এটা। আমি চাই টিউনাররা অসাধারন কিছু লেখা এখন পোস্ট করতে যাচ্ছে।
ধন্যবাদ সবাইকে।

দিহান ভাই, একটা আইডিয়া দেই, ভালো লাগলে করতে পারেন। টিউন আপডেট করলে লিখবেন আপডেটেড – ১.০ আবার আপডেট করলে ২.0 আবার করলে আবার বারাবেন, তাহলে বুঝতে সুবিধা হবে অনেকের।ঠিক বললাম না? :) :)
ভালো থাকুন

    হ্যাঁ ঠিক বলেছেন কিন্তু জানেন নাকি নির্বাচিত হলে টিউনের হেডিং চেঞ্জ করা যায় না। এজন্যে এমন করে দিতে হয়েছে। আর আপনি আমাকে ফেস বুকে রিমুভ করলেন কেন ?

কোন টরেন্টের সিড বেশী না পেলে হ্যাশ কপি করে গুগলে সার্চ দিলে অন্যান্য সাইটে যদি এই টরেন্টটি থাকে তাহলে তা পাওয়া যাবে,তখন টরেন্টটি ডাউনলোড করলে তা ডাউনলোড না হয়ে পূর্বের টরেন্টটির ট্র্যাকার লিস্ট আপডেট হয়ে যাবে। ফলে সিডের সংখ্যা বাড়বে (ওই সাইটে যত সিডার ছিলো তারা )।>/u>

এটুকু যদি একটু সহজ করে বলতেন, খুবি সুবিধা হত। আমি হ্যাশ বের করতে পারছি না। গুগল করে ডাউনলোড দিলে, নতুন করে আবার ডাউনলোড শুরু হয়। সিড বারে না :(

    মিউটরেন্টে যখন ডাউনলোড করছেন তখন দেখবেন যেখানে আপনার ডাউনলোড গুলোর লিস্ট দেখাচ্ছে তার নিচে জেনারেল ট্যাবে Save as, ToTal size, Hash ইত্যাদি আছে। সেখান থেকে হ্যাশ টা দেখে দেখে নোটপ্যাডে লিখে নিন, এর পর গুগলে সার্চ দিন। এখানে স্ক্রিনশট দিতে পারিনা বলে দেখাতে পারছিনা। দাঁড়ান একটু পরে আপডেট করে দিচ্ছি উপরে ঐ লেখাটার নিচে স্ক্রিনশট পাবেন

কোন টরেন্টের সিড বেশী না পেলে হ্যাশ কপি করে গুগলে সার্চ দিলে অন্যান্য সাইটে যদি এই টরেন্টটি থাকে তাহলে তা পাওয়া যাবে,তখন টরেন্টটি ডাউনলোড করলে তা ডাউনলোড না হয়ে পূর্বের টরেন্টটির ট্র্যাকার লিস্ট আপডেট হয়ে যাবে। ফলে সিডের সংখ্যা বাড়বে (ওই সাইটে যত সিডার ছিলো তারা )।

এটুকু যদি একটু সহজ করে বলতেন, খুবি সুবিধা হত। আমি হ্যাশ বের করতে পারছি না। গুগল করে ডাউনলোড দিলে, নতুন করে আবার ডাউনলোড শুরু হয়। সিড বারে না :(

বাংলা মুভি,নাটক বা ভারতীয় বাংলা মুভি(হাই- কোয়ালিটি ) র টরেন্ট সাইটের সন্ধান দিলে খুবই উপকৃত হই।

উবুন্টু ১০.১০ ম্যাভেরিক মিরক্যাট কি টরেন্ট ক্লায়েন্ট?

    না উবুন্টু ম্যাভেরিক মিরক্যাট হল এই প্রজন্মের সবচাইতে ভাল আর ব্যবহার বান্ধব লিনাক্স অপারেটিং সিস্টেম যা একবার ব্যবহার করলে উইন্ডোজ এক্সপি বা এসবের নামটাই ভুলে যেতে ইচ্ছা করবে । আর সেখানে কোন সফটওয়্যার লাগে না আলাদা টরেন্ট ডাউনলোড এর জন্যে। কেননা ট্রান্সমিশন নামে একখানা দেয়াই থাকে

ভাইয়া 11 নভেম্বর এর জায়গায় মনেহয় 11 অক্টোবর হবে।

torrent diya kisu download dile downloading uitha boisa thake, ghorar dim o hoy na, inactive list a jay, varified IDM 742 seed, 22 peer silo, bt download start hoy na ken vaiya ? bit comet diya try marlam, tao hoy na, downloader a aise seed ar peer zero hoiya jay. :S

Ai bisaaaal TUNE r jonno osonkho osonkho THNXXXX…..
onk kisu janlam..
bt 1 question….software download korte gele full version kivabe pabo janale kub kub e kusi hobo….many many thnx to u….thnxxxx thnxxx…thnxxx

ভাই, একটা সমস্যায় পড়েছি। আমি টেকটিউনসে একটা লিখা পোষ্ট করতে চাচ্ছি। কিন্তু ওটা ড্রাফটে সেভ হয়ে থাকে প্রকাশ হয় না। কি করতে পারি একটু সমাধান দেবেন?

এতো সুনদর টিউন হয়েছে যে আমি বাকরুদদ , বানান ভুল বাংলা খমা করবেন !
আপনার tune ti porbar aage ami torrent hote 100 haat dure thaktam karon amar kache mone hoto eta jotil ekta bishoy m, koyekbar cheshtao korsi kintu kichu bujhi nai , Apnar haat dhore ami ebong oneke torrent er world e probesh korlam. etto shundor tune ami khub kom e dekhechi . thank you so so so much

এত সুন্দর টিউনটা আমার দেখা হয় নি , যাই হোক নিঃসন্দেহে ভাল টিউন।

Bro
Really this is so mind blowing tune
Thanks

আমি ভয়মুক্ত……আনন্দিত…..অভিভূত….বাক্যহারা……অ-নে-ক….অনেক ধন্যবাদ।

    রাশু ভাই এর জ্ঞাতার্থে জানাচ্ছি- আপনি আপনার ডাউনলোড শেষ হয়ে গেলে সুন্দর করে utorrent এর ফাইল মেনু থেকে utorrent এক্সিট (exit) করে দিবেন অথবা টাস্কবার থেকে utorrent এক্সিট করে দিবেন। তাহলেই আর আপলোড হবেনা। আর পারলে options থেকে স্টার্ট আপ এর সময় utorrent যেন automatic চালু না হয় সেই ব্যবস্থা করবেন।

vai joos hoise aita amar pora sera post

Bro
1ta problem a porce. 97-98% upoad hobar por automatic error download dekai. Plz er 1ta solution deban ke?

আপনাকে ধন্যবাদ।আচ্ছা ডাউনলোডের সময় কি আপলোড হয়?

ভাই জটিল হইছে | আমার খুব উপকার হল | এই টিউন পড়ে|

এই টিউন হঠাৎ আবার নির্বাচিত? অবাক হইলাম

    আমিও অবাক হইলাম!
    নতুন অনেক ভাল মানের টিউন থাকার পরও পুরাতন একই ধরনের টিউন বার বার নির্বাচিত কেন হইতেছে বোধগম্য নয়।

ভালো লাগলো , প্রিয়তে নিলাম। কিন্তু টেকটিউন্স এর যে অবস্থা , এই আসে এই নাই, প্রয়োজনের সময় পাই কিনা ভাবছি… আমি বরং হার্ডডিস্কে রাখি।

vhi ata dia ki hotfile ar rar file resume download kora jabe

টরেন্টে বিষয়ে আগেই অনেক কিছু জেনেছিলাম…:D এখন আরো অনেক কিছু জানলাম…: ধন্যবাদ সুন্দর টিউন এর জন্য…:D 😀 😀

torrent আমার চরম লাগে শুধু একটাই সমস্যা স্পিড ১০ থাকে ১৫ থাকলে ভাল হত।

একজনের কাছে শুনলাম টরেন্ট নাকি সিস্টেম স্লো করে? ঠিক না বেঠিক??

আমি টেকটিউনস থেকে অনক কিছু শিথেছি।আজ আমার প্রথম কমেন্টস।nice share.ভাইয়া

Dear Dihan ভাই, 2nd time টিউন তা পড়লাম। যদিও torrent আগেও use করতাম কিন্ত এই tune টা পরার পর অনেক নতুন জিনিস জানতে পারলাম যা আগে জানতাম না। আপনি হ্যাশ কপি করার ব্যাপারে বলেছেন। বাপারটা আরেকটু clear করবেন plz. For the rest of the tune….THANX A LOT

একটা ১৮ জিবি ফাইল নামাচ্ছি, ২০% নেমেছে…এই মুহূর্তে উইন্ডোজ সেটাপ দেয়াটা জরূরী।
কি করতে পারি দয়া করে জানাবেন কি?

~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~
এডমিনকে ধন্যবাদ। আমার টিউনটা ফিরিয়ে আনার ব্যবস্থা করার জন্য।
~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~~

Awesome dude thanks a lot for some new information 😉

অনেক ধন্যবাদ দিহান ভাই। আশা করি আপনি এরকম আরো অনেক টিউন করে যান। আপনি যদি আমার ইমেইল একাউন্টে উইন্ডোজ ৭ সেটাপ দেয়ার উপায়টা বলেন তাহলে খুব খুশি হবো। irfanborshon@yahoo.com

    ভাইয়া উইন্ডোজ ৭ ইন্সটল করা তো কঠিন কিছু না। আপনি শুধু ৭ এর ডিভিডি ঢুকান আর ধীরে সুস্থে ওরা যা যা করতে বলে তা করেন। শেষ। আমিও নিজে নিজেই শিখেছি। আপনি নিশ্চয়ই এতদিনে পেরে গেছেন।

বস্‌ এটা হলো জ্ঞান। আপনার দ্বারা যে জ্ঞান পেলাম তা ভাষায় প্রকাশ করার মতো নয়। তবে খু্বই উপকার হলো। আমি ফাইলটা ডাউনলোড করছি। অনেক অনেক ধন্যবাদ ধন্যবাদ ধন্যবাদ

আগে কিউবি ৫১২ আনলিমিটেড ব্যবহার করতাম। ধুমায়া ডাউনলোড দিতাম প্রায় ২৪ঘন্টাই। এখন ভার্সিটির ফ্রি ওয়াই ফাই থাকায়, আজকে ওয়াইফাই মডেম কিনলাম। সমস্যা হচ্ছে ভার্সিটি নেটওয়ার্কে আমি টরেন্ট ডাউনলোড করতে পারছি না। আমি বিটলর্ড ইউজ করি। কেউ কি পরামর্শ দিবেন কিভাবে টরেন্ট ডাউনলোডটা একটিভ করতে পারি?????

    হা হা ! সহজ সমাধান আছে। http://www.6ybh-upload.com এ যান, নতুন আইডি বানান। এর পর upload ক্লিক করুন। দেখবেন একটা অপশন আছে নাম leech torrent ঐটায় টরেন্ট ফাইলটা দেখিয়ে দিন। একটু পরে ঐটা এখানে আপলোড হয়ে যাবে। তারপর রিজিউম সাপোর্ট সহ পুরা স্পিডে ধুমায়া ডাউনলোড করেন এই সাইটের দেয়া লিঙ্ক থেকে।

ভাই খুবই ভাল লেগেছে। আমারা জারা নুতন তাদের জন্য অনেক উপকারি। চেষ্টা করে দেখব কারন আমি টরেন্ট এর ব্যাপারে একেবারে নতুন।আমাকে পর পর কএকবার পরতে হবে।আপ্নার কষ্ট সারথক হয়েছে ভাই।আপনাকে ধন্যবাদ।

উপরের পোস্ট টী খুব ই ভাল।কিন্তু একে আরও ভালো করা জাই।torrentz.eu theke torrent filer url copy korun
tarpor http://www.torrific.com e logged in korun,then url ti past korun.then press get &so on ….if available then download with idm

for more details email me:debbrta@gmail.com

nice tune. im new about torrent. and im trying to use torrent. thanks.

অসাধারণ !!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!

ভাইয়া আপনার প্রতি টিউন ই মারাত্তক।অসাধারন লিখেন আপনি।

হায় আল্লাহ! কি দেখলাম এইডা।

কয়টে পেলাস লিবেন কন? চেক আনেন, সাইন কইরা দি।

bitsnoop টা জুইড়া দিতে পারতেন।

অফটপিক: গেরাভাটার খান সুন্দর হইছে।

দিহান ভাই, আমি টেকটিউন এ নতুন । খুজে খুজে দেখছিলাম আমার প্রয়জনীয় টিউন । হঠাৎ নজরে পড়লো আপনার টিইউনটা । মনে মনে বললাম, হায়রে, এত খোজা তাহলে সফল হলো ? এটাই তো খুজছিলাম ! আপনি বিস্তারিত ভাবে এবং এত সুন্দরভাবে বিষয়টাকে তুলে ধরেছেন যে, আমার মত নতুনেরও Torrent এর অদ্যোপানত মুখস্ত হয়ে গেল ।
এত ভাল লাগল টিউনটা, বস । জটিল হইসে । অসাধারন !
আপনার সাফল্য কামনা করে শেষ করছি ।

অনেক উপকার করলেন দিহান ভাই…
আসলে এরকম একটা টিউন ই খুজছিলাম আর আইজকা অবশেষে পাইয়া ই গেলাম।
ধন্যবাদ আপনার সুন্দর টিউনের জন্য।

ও হে এডসেন্স পাবলিসার্শ রা এই টিউনটা অন্তত একবার হইলে ও পড়ে আসেন, আশা করি অনেক কাজে দিবে…
http://techtunes.com.bd/tips-and-tricks/tune-id/72347
( বিষয়ঃ গুগল এডসেন্স ধারীরা সাবধান হোন : এডসেন্স ব্যান এড়াতে টিউনটিতে বিশেষ দৃষ্টি দিন )

vaire ki bolbo eitai ami khujtecilam….apnake onek onek onek onek Thanks .valo thakben

ওয়াও, বহুদিন পর এমন একটা লেখা পরলাম, কেনো যে আগে টেকটিউনসে আসতে পারলাম না, ও আচ্ছা মনে পড়েছে, নেট ছলোনা, আর আমি জানতাম ও না ! লেখাটা প্রিয় করে নিলাম !

bhai ,sobai to sob bole e dilo .kisu raklo na amr jonno . amr kase tune ta khub bhalo lagse .r ami techtunes e new .tai sob kisu bujte ektu deri hosse. well done .

দারুর হয়েছে বস্ ভাল থাকবেন

দারুন টিউন। মেগা টিউন। আরো টিউন করুন। ধন্যবাদ।

Dihan Vai apnar kollana lyf a first torrent file namailam…………thanx for this excellent mega tune……@Dihan vai…..

ভাই আমি আপনার টিউনটি পড়ে রীতিমত মুগ্ধ । চরম লিখেছেন । 😀 😀 😀 । অনেক অনেক উপকারে আসবে ।

ভাই, সাইফুল ভাই না কার যেনো টরেন্ট ফাইল কে IDM দিয়ে নামানোর একটা টিউন ছিলো। ওটা যদি পারেন লিংক দিয়ে দিবেন প্লিজ…অসাধারন একটি টিউন…

যারা ফেয়ার ইউসেজ পলিসি ছাড়া আনলিমিটেড নেট ব্যবহার করেন, তাদের প্রতি অনুরোধ আপনারা ফাইল আপলোড করবেন। এটা একটা কমিউনিটি উদ্যোগ। অন্য কেউ শেয়ার করছে বলেই আপনি পাচ্ছেন, তাই অসুবিধা না হলে উচিত সবারই অন্তত কিছুদিন শেয়ার করা। যেমন কোন একটা ফাইল নামানোর পর এক সপ্তাহ পর্যন্ত আমি ঐ ফাইলটা শেয়ারে রাখি।

দিহান ভাই, আপনি বলেছেন সবুজ গুল সিড এর সংখ্যা এবং নীল গুল পিয়ার এর সংখ্যা তাহলে, সিড(০) এবং পিয়ার (১৭) হয় কি করে?
http://torrentz.eu/search?q=sims+3&p=2

ভাই আমি আপনার টিউনটি পড়ে রীতিমত মুগ্ধ । টরেন্ট সম্পর্কে জানার খুব ইচ্ছে ছিল, কিন্তু সুযোগ পাচ্ছিলাম না। আপনার অসাধারণ টিউনটি থেকে basic আইডিয়াটা পেলাম।অনেক অনেক উপকারে আসবে । দিহান ভাই, অনেক ধন্যবাদ।

চরম হইসে ভাই

অনেক দেরি হয়ে গেল । কিন্তু সত্যিই ধন্যবাদটা আপনার প্রাপ্য । অসাধারণ ভাই । অনেক কিছু জানতে পারলাম । ভাল থাকবেন

এত বড় টিউন পড়ার ধর্য্য হচ্ছেনা আমার..

প্রথম অংশ পড়েই বুঝেছ- টিয়নটা সিমপ্লি অসাম

হুম, পুরাই মেগা

ভাইয়া আপনার মেগা টিউনটা তে torrific.com এর কথা লিখলে আরও ভালো লাগতো । যেহেতু লেখাটাকে নির্বাচিত করা হয়েছে, এই টিউন টা দেখুন http://techtunes.com.bd/tips-and-tricks/tune-id/86840/ এবং পারলে আপডেট করে দিন আপনার মেগা টিউন টা ।

এবার আপনাদের জানাবো কিভাবে খুব সহজেই seed আর peer এর টেনশন না করে আপনি সহজেই আপনার IDM এর দ্বারা আপনি torrent ফাইল download করবেন। নিচের step গুলো অনুসরণ করুন দয়া করেঃ
১. প্রথমেই Torrific.com এ একটি account এর জন্য sign up করুন
২. এবার যে কোনও সাইটের torrent ফাইল এর উপরে রাইট বাটন ক্লিক করে তার লিঙ্কটি কপি করুন
3. এবার কপি করা লিঙ্কটি torrific.com এ গিয়ে পেস্ট করুন নিচের ছবির মত খালি জায়গায়ঃ

৪. এবার ডান পাশের get বাটন এ ক্লিক করুন
৫. এরপরের যে পেজটি ওপেন হবে তাতে থাকবে ঐ torrent ফাইলটির সকল sub ফাইল এর লিস্ট। এখান থেকে আপনার পছন্দের ফাইলটিতে ক্লিক করুন
৬. দেখবেন সাথে সাথে আপনার ইন্সটল করা IDM দ্বারা ফাইলটি ডাউনলোড শুরু হয়ে গেছে এবং আপনি পাচ্ছেন আপনার লাইনের MAXIMUM স্পিড !!!!!!! এবং ডাউনলোডেবল ফাইলটি RESUMEও করা যাবে।

এক্ষেত্রে বলে রাখা ভাল যে যদি torrent ফাইলটির seed এবং peer খুবই কম হয় সেক্ষেত্রে আপনার ফাইল টি torrific.com এর server এ আপলোড করতে তারা কিছু সময় চাইবে। সেখেত্রে কিছুক্ষন অপেক্ষা করলেই ফাইলটি ডাউনলোড এর উপযোগী হয়ে যাবে
তো আর কি চিন্তা? এখন INTERNET DOWNLOAD MANGER ব্যাবহার করেই ফুল স্পিড এ নামিয়ে নিন টরেন্ট ফাইল আর seed এবং peer কে বলুন টা টা।

torrent a kivabe file upload dite hoi kew ki ektu janaben….plzzzzzz

ভাই, টিউনটাতে একবার চোখ বুলিয়েই প্রিয়তে নিয়ে নিলাম। নি:সন্দেহে ভাল লেখা। টরেন্টো সম্পর্কে জানলেও এত বেশি জানতাম না, এখান থেকে জানতে পারলাম। বেশ গুছিয়ে লিখেছেন। শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ। ভাল থাকবেন।

vai ami oi torrent client dload die install korer por dekhlam instal hosse na…….bolse crash korse………ekhon er karone abr install deoao somvob hosse na…..

দিহান ভাই খুব ভালো লিখেছ? আমরা যেন নিয়মিত টিউন পাই আপনার কাছ থেকে।

আপনি ভাই একটা জিনিশ।অনেক দিন এই টিউন টা নির্বাচিত করাতে ভালই হয়েছে।যারা নতুন তারা টরেন্ট এর আগা মাথা ভালো করে জানতে পারবে।

একটা অসাধারন টিউন এর জন্য দিহান ভাই কে অশেষ ধন্যবাদ।

shob tuner der ke bolchi,
ami akta chorom shomoshshay porechi. ami IDM use kori. kintu sheta free version. shomoshsha holo trial version hobar karone 30 din por aita ar kaj korena. uninstall kore set up dileo kaj korena. tokhon abar windows set up dile tobei IDM abar kaj kore. proti mashe akbar kore windows deya ta jhamelar noy? so priyo tuner der kache amar request apnara jodi er kono shomadhan jene thaken tahole plz amar shathe share korben plz plz plz.
talha.stu@gmail.com

অসাধারন টিউন…অনেক অজানা তথ্য জানতে পারলাম……ধন্যবাদ।

khob e valo hoise vai
ami ar ager bar o poresilam; kinto aibar comments korlam……..

আশা করি নির্বাচিত হবে………………

talhareza………IDM use na kore orbit downloder use korte paren…….google e search den.

vai amr mutorrent to install hote chassena….berber dekhai ur mutorrent have crashed..

Nice tune..
Internet explorer 8 install korte parsi na. Genuine korte bole.
Bhai akhane ki kew help korte parben amake?

খুবই তথ্যবহুল পোষ্ট। অনেক অনেক ধন্যবাদ।

টরেন্টের বিস্তারিত জানানোর জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ। অনেক দিন থেকে এরকম কিছুই খোঁজ করছিলাম।

this is one of da best post of the year……………. +++++++++++++++

tnkz bro….

টিউন টা পড়ে বুকে জড়াই ধরতে ইচ্ছা করতেছে। বস আমাদের সাথে আরো ভাল ভাল টিউন শেয়ার করবেন আশা করি।

ভাই আমি একটা মুভি ডাউনলোড এ দিছি কিন্তু আত স্লো নামে যে ২৬ সাপ্তাহ টাইম ছায়।কি করব।মেজাজ টা ই খারাপ হইয়া গেল।তরেন্ত মজা পাইলাম না।হেল্প করেন কি করব

ভাই আপনার এতো সুন্দর টিউন এর পর টরেন্ট সম্পরকে বলার আর কিছু নাই, তবে একটু খানি যোগ করতে চাই সেটা হল আমার ২.৫ বছরের টরেন্ট ডাউনলোড এর অভিজ্ঞতাই Bitlord 1.1 এর মত আর কোন টরেন্ট ডাউনলোডার আর পাইনি আপনারা try করে দেখতে পারেন কিন্তু এর পরের ভার্সন গুলা ভাল কাজ করে না Like Bitlord 1.8, 2.0, 2.2 .

অসাধারন টিউন…
অনেক অজানা তথ্য জানতে পারলাম…
ধন্যবাদ…

হিমায়িত দিহান ভাই, আপনার টিউনটা অসাধারণ বললেও কম বলা হবে। আশা করি আপনি ‍আরো বহুদূর যাবেন………….

Excellent! Excellent!

Thank you very much, brother. Thank you.

Nice tutorial for newbie.
Thanks and awesome effort.It is really hard work,
whatever you can also visit our web : http://www.webstrome.com/

অনেক ধন্যবাদ।
ভাই গতি খুব কম। 400 mb ডাউনলোড করতে ৬/৭ ঘন্টা লাগছে। কি করব জানাবেন আশা করি। আর আপনার মেইলটা দিলে উপকৃত হব। আবারও ধন্যবাদ।

    @habib0088: মেইল সবার সামনে দেয়া ঠিক না। স্পাম আসবে বেশি। আসলে আপনার যে টরেন্ট নামাচ্ছেন সেটার উপরেই স্পিড নির্ভর করে। জনপ্রিয় টরেন্ট নামান স্পিড ভাল পাবেন।

গতি কম ছাড়াও আরেকটি বিষয় বুঝতে পারছি না। সেটা হল অন্য সাইট থেকে Real Player দিয়ে ১৮ মিনিটের ভিডিওর সাইজ যেখানে ৭৬ mb সেখানে টরেন্ট দিয়ে ডাউনলোড করা একটি ১৭ মিনিটের ভিডিওর সাইজ দেখাচ্ছে ৩৩৯ mb , কেন এমন হচ্ছে একটু বলবেন?

দিহান ভাই আপনাকে অনেক ধন্যবাদ। আমার মেইল দিচ্ছি। একটু যোগাযোগ করবেন। এটাও আমার দ্বিতীয় মেইল। হা হা হা। আপনার কাছ থেকে অনেক সহযোগিতা পেতে পারি । তাই যোগাযোগ করতে চাচ্ছি।
ovi.lash@yahoo.com

http://www.bitlet.org তে sign up kora lage na.link dilei hoi

এতদিন পরে টিউনখানা পইড়া পরানডা ঠান্ডা হইয়া গেলো……………..আরে মিয়া জটিল লিখছো তো!!!!

Dihan bhai, amar muTorrent software er nicher dan dike lal chinno hoye thake keno? likha thake j firewall is limited abong aro kisu, plz, janaben

thanks ki r bolbo re vi e ta porar age to parcilam na pore ekhon pareci ti dhonobad .

Dihan bhai, nice tune. amar mutorrent software er nicher dan dike lal chinno hoye thake keno? likha thake j firewall is limited abong aro kisu, plz, help me

Amar mutorrent software er nicher dan dike lal chinno hoye thake keno? likha thake j firewall is limited abong aro kisu likha thake, plz, help me

আমি টেকউনের নতুন user । আপনার টিউনটি পড়ে টরেন্ট সম্পর্কে অনেক কিছুই জানতে পেরেছি। কিন্তু কাজ করতে গিয়ে কিছু সমস্যা হচ্ছে। যেমন ঃ- utorrent দিয়ে “in the name of the king 2″ download করতে গিয়ে দেখি download speed ( .5-5 kb/s ) এর মধ্যে থাকে। speed বেশি না পাওয়ার কারন কি। peer=3000+ & seed=2000+. সেদিন একটা ব্লগে দেকলাম তিনি টরেন্ট দিয়ে ৮৭৬ কেবি/s স্পীড পাচ্ছেন। কিভাবে করলেন? আমি zoom ultra 300 kbps plan use করছি। সমাধান জানালে কৃতজ্ঞ হবো। mail address:- kh.anik001@gmail.com

বিদেশের পোলাপান স্পিড পায় ১-১০ এম বি পিএস বা তারও বেশি…… বিডিতে এইরকম পাইনা কেন ভাই?

Dihan bhai, Seeder, Peer, egulo bujhi kintu Leecher, Health egulo bujhina. ata diye ki bujai?

দিহান ভাই, বাংলা টরেন্ট-এ রেজিস্টার করতে পারতেছি না। বলতেছে, ৫ ডলার নাকি ডোনেট করতে হবে। আসলেই কি তাই?

চমৎকার পোস্ট…! দিহান ভাই, TD(TorrentDay) এর একটা invitation পাঠাবেন? Please…. আমার মেইল এড্রেসঃ “frzban@gmail.com”

torrent er speed barabo kivabe?

খুব ভালো টিউন,তবে IDM দিয়ে ডাউনলোডের নিয়মটা স্ক্রিনশর্ট সহ দিলে খুব ভালো হতো,তার পরেও অনেক ধন্যবাদ আপনাকে I

ধন্যবাদ এত বড় ও সুন্দর তথ্যবহুল পোস্ট -এর জন্য , পড়ে torrent সম্পর্কে আরও বেশি কিছু শিখলাম । আর আমরা torrent ডাউনলোড এর যোগ্য না (15-20kbps) তবুও ভবিষ্যতে যদি কাজে লাগে

ধন্যবাদ।
আসাধারণ

torrent এর পুরাই আলাপ করলেন , দারুন হয়েছে, ১০০% মান

yify torrent theke all HD 720p torrent movie download korte paren.100% free and size 700 mb to 2 GB

গতকাল দুপুরের আগেও জানতাম না torrent ki…!!!

এখনও টিউন টি পড়া শেষ করতে পারি নাই, প্রায় ৬০০ এমবি ডাউনলোড শেষ…

ধন্নবাদ…অনেক…অনেক…ধন্যবাদ

ভাই আনেক দিন ধরে ভাবছিলাম। আজ পরিপুর্ন হলাম।

Many Many Thanks.

BHAI LEKHA LEKHIR KAJTA EKTO BESHI BORO HOYE GESHE SOTO KORLEY PARTEN LEKHAR SOMOY KI HAT BETA KORE NAI…….D.J.S.K

ধন্যবাদ ধন্যবাদ এবং ধন্যবাদ,

দারুন উপকারী পোস্ট । আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ ।

নাহিদ ভাই আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ । টরেন্ট সম্পর্কে ধারনাটা বেশ ক্লিয়ার হল আপনার টিউন টি পড়ে।

আপনাকে ধন্যবাদ এত কষ্ট করে আমাদের জন্য টিউন করেছেন তাই। আমারও টরেন্ট সম্পর্কে ধারনাটা বেশ ক্লিয়ার হল।

আমি কিছুদিন ধরে টরেন্টে উইনডোজ ৭(32 bit) আল্টিমেট খুজে আসছি।কিন্তু যে রেজাল্ট পাচ্ছি সবখানেই সিডার ও লিচারের সংখ্যা খুব কম।কেও আমাকে ভাল ও অনেক সিডার ও লিচার আছে এমন টরেন্ট লিন্ক দিতে পারবেন?সরি সাহায্য বিভাগে না দেওয়ায়।

Amr pc te kisu kisu torrent onek khani download hobar por majh pothe r kono speed pay na oi file r download korte pari na…

FURK reg korta Invite code to ki hoba koi bolta paren

kag kora koita aita dhakar bisoy

Vai http://zbigz.com dia try maren kaj hobe limit 8gb
so tension niyen na..

সেই রকম একটা কাজের টিউন !!!!!!!!!!

সত্যিই দারুন টিউন,অনেক অজানা তথ্য জানলাম, ধন্যবাদ দিয়ে আপনাকে ছোট করতে চাচ্ছি না , ভালো থাকবেন আর চমৎকার এরকম টিউন করবেন আশা রাখছি।

@দিহান ভাই zbigz.com এইটা ছাড়া অন্য কিছু দেন যেমন bytebox.com এইটা দিয়া ভালই ডাঊনলড হতো এখন হয় না। খুব সমসসার মধ্যে আছি।

@দিহান ও সকল ভাই zbigz.com এইটা ছাড়া অন্য কিছু দেন যেমন bytebox.com এইটা দিয়া ভালই ডাঊনলড হতো এখন হয় না। খুব সমসসার মধ্যে আছি। আসা করি উত্তর পাবো।

zbigz.com ফ্রী ইউজার দের ফাইল সাইজ লিমিট ৮জিবি থেকে ১ জিবি করেছে :(
মুভি ডাউনলোড এর সেরা সাইট হচ্ছে http://yify-torrents.com/ কোন রকম সন্দেহ ছাড়াই বলতে পারি।

http://www.furk.net এ রেজিস্টার করলাম কিন্তু ম্যাগনেট লিংক submit করে ডাউনলোড অপশন খুজে পাচ্ছি না

filestream.me ইউজ করতে পারেন সবাই… ১০জিবি পর্যন্ত সাপোর্ট করে :)

Vai apnake onek onek thank ei post ti bistarito alochona korar jonno. ami khub upkrito hoechi.

vai ame torrent idm diya download krte chai er jonno best ekti site bole diben pls file size tao unlimited vai

ভাই bytebx এর প্রিমিয়াম একাউন্ট ফ্রীতে কিভাবে ব্যবহার করা যায় সেটা কি বলা যাবে । অথবা ভাল একটা সাইট দিন যেটা যে কোন ভাবে এক্সেস সাপোর্ট করবে । আশা করি দ্রুতই উত্তর পাবো ।

আচ্ছা uTorrent Software-এ Queued Seed বলতে কি বোঝানো হয় ?

Dhonnobad dilam na tai tnx janalam…….vai

ভাই, আমার আপনার এই লিখাটি সত্যি অসাধারন লাগছে, ধন্যবাদ

অনেক দরকারী জিনিস। উপকার করলেন ভাই।

জনাব, আপনি অনেক ব্যাকডেটেড
Furk.net এ resume সুবিধা নাই (আছে বাট বহু ঝামেলার), একটা মুভি নামাতে বহু দিন লাগে ।
ইন্সট্যান্ট ডাউনলোডের কোন পদ্দধতি জানা থাকলে বলতে পারেন বিশেষ করে resume .

    @ইভা লুসি সেন: আপনি যেই টিউনটি পড়ে টিউনারকে “অনেক ব্যাকডেটেড” বললেন, সেই টিউনটা 2010 সালের 9 Sep. করা । আর আজকে 31 July, 2014 ।

    আপনার কাছ থেকে কিছু “আপডেটেড” টিউন আশা করছি @ইভা আপু ।

Furk is very limited . You can check some Furk alternatives http://techspree.net/5-best-zbigz-alternatives-june-2013/ and detailed post on how to downoad torrents http://techspree.net/download-torrent-files-with-filesloop/

দিহান ভাই, torrent leech site গুলো একদিন সময় করে লিখলে ভাল হত । সবচেয়ে ভাল ভাবে কি ভাবে হাই স্পিড এ টরেন্ট নামানো যায়

    High Speed internet ব্যবহার করে। আমি লিচিং সাপোর্ট করি না। লিচারদের জন্য আজকাল টরেন্টের স্পিড পাওয়া যায় না।

ভাই, অনেকেই অনেক ভাবেই প্রসংশা করেছে আমার আর বলার কিছু নাই’ তারপরও বলছি অসাধারন।

সময় দিয়ে এতো সুন্দর টিউন করার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ

অনেক উপকারী পোষ্ট । ধন্যবাদ

ভাই আপনার টিউন আমার অনেক উপকারে এসেছে।কিন্তু এক্টা বিসয় এখনো ক্লিয়ার হয়নি সেটা হল
ইন্টারনেট থেকে গেমস নামাতে গেলে
জদি একবার ডাউনলোড চলাকালিন কারেন্ট চলে জায় সব সেস পরে ডাউনলোড রিজুম হয় কিন্তু ডাউনলোড কম্পলিট হলেও ইন্সটল হয়না

তাই বলছি টরেন্ট থেকে জদি গেমস নামাই তাহ্লে সেটা রিজুম হলে পরে ডাউনলোড কম্পলিট হলে কি ইন্সটল হবে

ভাই শুধু গেম ফাইলের বেলায় কারন গেমস এ জদি কোন ফাইল মিসিং হয় এবং তা জদি 1 কেবি ও হয় তাহলে সেটা চলে না তাই টরেন্ট থেকে পিসি গেম নামালে তা রিজুম হবার পর ফুল ডাউনলোড দিলে কি ইন্সটল হবে বা কোন ফাইল মিসিং থাকবে না তো

You must be logged in to post a Tumment.